Monday, August 26, 2019

অভিনেতা বাবর আর নেই


অভিনেতা বাবর আর নেই ঢাকাই চলচ্চিত্রের একসময়ের দাপুটে খলঅভিনেতা খলিলুর রহমান বাবর আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি সোমবার (২৬ আগস্ট) সকাল ৯টা ১০ মিনিটে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। চলচ্চিত্র পরিচালক শাহ আলম মন্ডল এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
গত বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) ব্রেন স্ট্রোক করলে বাবরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ছাড়া দীর্ঘদিন ধরেই গ্যাংরিন (পচন রোগ) সমস্যায় ভুগছিলেন তিনি । গত ৯ জুন অপারেশন করে তার বাম পা অপসারণ করা হয়। এর আগে বাবরের বাঁ পায়ের তিনটি আঙুল গ্যাংরিন রোগে আক্রান্ত ছিল। গত ৩ মে চিকিৎসকের পরামর্শে আক্রান্ত তিনটি আঙুল কেটে ফেলা হয়। ক্রমেই তার হাঁটুর নিচ পর্যন্ত আক্রান্ত হতে থাকে। চিকিৎসক তার পুরো শরীর বাঁচাতে হাঁটুর নিচ পর্যন্ত কেটে ফেলার পরামর্শ দেন। এ ছাড়া উচ্চ রক্তচাপ, ডায়াবেটিস, হার্ট ও ফুসফুসের সমস্যায় ভুগছিলেন বাবর।
চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান বলেন, ‘আজ বাদ জোহর এফডিসিতে তার মরদেহ আনা হবে। এফিডিসিতে জানাজা শেষে লাশ তার কলাবাগানের বাসায় নেয়া হবে। সেখান থেকে রাজধানীর মিরপুরে বুদ্ধিজীবী কবর স্থানে তাকে সমাহিত করা হবে।’
১৯৫২ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি ঢাকার গেন্ডারিয়ায় জন্মগ্রহণ করেন চলচ্চিত্রের এক সময়ের জনপ্রিয় এই খল অভিনেতা। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী সুলতানা রহমান, মেয়ে ওমাইনা রহমান এবং ছেলে রিয়াদুর রহমানকে রেখে গেছেন। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির আজীবন সদস্য ছিলেন তিনি।
আমজাদ হোসেন পরিচালিত ‘বাংলার মুখ’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে নায়ক হিসেবে চলচ্চিত্রে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন বাবর। খল অভিনেতা হিসেবে বাবরের যাত্রা শুরু হয় রাজ্জাক প্রযোজিত ও জহিরুল হক পরিচালিত ‘রংবাজ’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে। এরপর প্রায় তিন শতাধিক চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। প্রায় এক যুগ আগে মনোয়ার হোসেন ডিপজলের ‘তের গুণ্ডা এক পাণ্ডা’ চলচ্চিত্রে সর্বশেষ অভিনয় করেছিলেন তিনি। বাবর ‘দাগী’ নামে একটি চলচ্চিত্র প্রযোজনা করেছেন। পরিচালনা করেছেন ‘দয়াবান’, ‘দাগী’ ও ‘দাদাভাই’ নামের চলচ্চিত্রগুলো। অসুস্থতার কারণে দীর্ঘদিন ধরে চলচ্চিত্র থেকে দূরে ছিলেন তিনি।

শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: